September 13, 2014

সাপ্তাহিকী




তিন মাস ধরে এক লাখেরও বেশি ছবি তুলে তবে ধোঁয়ার ভেতর নিজের পছন্দের ছবি খুঁজে পেয়েছেন আলোকচিত্রী Thomas Herbrich.

Whenever I feel the need to exercise, I lie down until it goes away.
                                                                     --- Paul Terry

Wes Anderson-এর বেশি ছবি আমি দেখিনি, কিন্তু যা দেখেছি ভালোলাগা জন্মানোর তা-ই যথেষ্ট।অদ্ভুত সুন্দর সব দৃশ্য তৈরি করতে পারেন ভদ্রলোক। তাঁর তৈরি করা কিছু গাড়িঘোড়ার দৃশ্য জড়ো করে এই ভিডিওটা বানানো হয়েছে। আমার তো খুব ভালো লেগেছে দেখতে।


একটা আস্ত বোয়িং প্লেনের সমান ছিল এক একটা ডাইনোসর।

সুগত খবর দিলেন, সেদিন নাকি পাঁচ মিলিয়ন গুগল অ্যাকাউন্টের পাসওয়ার্ড লিক হয়েছে। আপনার পাসওয়ার্ডও তাদের মধ্যে আছে কিনা শিগগিরি দেখে নিন।


এই একটা কাজের লিস্ট বানিয়েছে উইকিপিডিয়া।

একসময় আমাদের বাড়িতে গ-মাসি বলে একজন রান্না করতে আসতেন। আমার তাঁর রান্না ভালোই লাগত কিন্তু ঠাকুমা বলতেন গ-মাসির নাকি হাসপাতালের রান্নাঘরে চাকরি নেওয়া উচিত কারণ তিনি ‘হসপিটাল ফুড’ ছাড়া আর কিছুই রাঁধতে পারেন না। এই লিংকটা দেখে কথাটা মনে পড়ে গেল।

সত্যজিতের গল্পে সেই অনুকূলের কথা পড়েছিলাম আর এই চোখে দেখলাম জিবোকে।

কেউ বলে জটা, কেউ বলে ডি-কনস্ট্রাকটেড বিনুনি।

ঘর রং করার এই কায়দাটা আমার দারুণ পছন্দ হয়েছে।


আমার ফেএএএএএভারিট দুঃখের গান। আমি নিশ্চিত আপনাদের অনেকেরও।


9 comments:

  1. Google account er site ta ke bisshash korte parlam na. Highly suspicious.

    ReplyDelete
    Replies
    1. Amar hyan, Paul er boktobyo bhari pochhondo hoyechey.

      Delete
    2. কে জানে, গুজব কি না সোমনাথ। পলের বক্তব্য আমারও মনে ধরেছে বেশ।

      Delete
    3. পাসওয়ার্ড লীকের খবরটা সত্যি (http://goo.gl/KMvkni), কিন্তু ওই সাইটটা ভালো না খারাপ তাই নিয়ে দ্বিমত রয়েছে। তবে যেহেতু ওরা শুধুমাত্র ইমেল জানতে চাইছে, তাই আমি দিতে দ্বিধা করিনি। আমার ইমেল পাওয়া মোটেই এমন কিছু শক্ত কাজ নয়। তারপরেও সন্দেহ থাকলে ওরা তো বলেইছে তিনটে লেটার * দিয়ে লিখেও জানা যাবে।

      Delete
  2. Wes Anderson er opor ei video ta -http://vimeo.com/89302848 dekho, darun composition!
    Aar favourite dukhher gaan ta amar-o khub priyo (Ki chaap!)

    ReplyDelete
    Replies
    1. ভিডিওটা পাঠানোর জন্য অনেক ধন্যবাদ কোয়েল। শচীনকত্তার গানে হাই ফাইভ।

      Delete
  3. আমার বাড়িটা ভারী পছন্দ হয়েছে। হোয়াইট হাউস না, পাহাড়ের গায়ে কাঁচের বাড়িটা। তবে ওই বাড়িতে থাকলে অন্য লোকের দিকে ঢিল ছোঁড়া যাবেনা এই যা।

    ReplyDelete
    Replies
    1. হাহাহা, হোয়াইট হাউস যে না সেটা বুঝেছি, সুগত। তবে আপনি যদি ও রকম ঝুলন্ত বাড়িতে থাকেন তাহলে আপনার বাড়িতে বেড়াতে যাওয়া যাবে না।

      Delete

 
Creative Commons License
This work is licensed under a Creative Commons Attribution-NonCommercial-NoDerivs 3.0 Unported License.