June 05, 2013

Things I am Not Loving



১. দিল্লির আবহাওয়া। আসলে দিল্লির আবহাওয়া ঠিক নয়। গরমের জায়গায় গরম পড়েছে তাতে অস্বাভাবিক কিছু নেই। কিন্তু রিষড়া থেকে মা ফোন করে বলছেন, আকাশ দিয়ে নাকি থরেথরে মেঘ ভেসেভেসে চলেছে, ইচ্ছে হলেই আমাদের ছাদের ওপর থেমে ঝমঝম করে খানিক ঢেলে হালকা হয়ে নিচ্ছে। গাছগুলোর পাতা যা ঝকঝকে সবুজ হয়েছে সোনা। মেল খুলে দেখিস, ছবি পাঠিয়েছি। ইনবক্স খুলে সত্যি দেখি ছবি। ঘন সবুজের গায়ে উজ্জ্বল লাল রঙের রঙ্গন, হলুদ কল্‌কে, সাদা কাঞ্চন। তাকিয়ে থাকতে থাকতে একটু একটু রাগ ধরে যাচ্ছে দেখে আমি গাছের থেকে মনোযোগ সরালাম। এত বয়স হল, তবু এরা হোয়াইট ব্যালেন্স ব্যাপারটা বুঝল না কেন কে জানে। এবার বাড়ি গিয়ে হাতে ধরে বুঝিয়ে দিতে হবে। যেদিকটা না দেখব...

মন ভালো করার জন্য মুম্বইতে পিং করলাম। তোদের গরম কেমন? রায়বাঘিনী বলল, পরশু পর্যন্ত ভালোই ছিল, পরশু থেকে বৃষ্টি নেমেছে। আমি চুপ করে আছি দেখে সান্ত্বনা দেওয়ার জন্যই তড়িঘড়ি জুড়ে দিল, এইবার চলবে মাসের পর মাস। যখনতখন, যেখানেসেখানে। গুঁড়িগুঁড়ি, টিপটিপ, ঝমঝম। এত বোরিং, বললে বিশ্বাস করবি না। কাজকর্ম এত হ্যাম্পার হয়। বেরোতেই ইচ্ছে করে না। খালি মনে হয় বাড়িতে বসে চা খাই আর গ্রিলের ফাঁক দিয়ে জলপড়া পাতানড়া দেখি, দেখতেই থাকি, দেখতেই থাকি...

আমি তাড়াতাড়ি বস্‌ ডাকছে বলে চ্যাটবাক্স বন্ধ করে প্রাণ নিয়ে পালাই। এ.সি.তে বসেও রাগে আমার কান দিয়ে ধোঁয়া বেরোতে থাকে। কী অবিচার, ভাবা যায়? দুঃখের মধ্যে রুপোলি রেখা খুঁজতে গিয়ে ভাবি, ভাগ্যিস চেন্নাইয়ে কোনও চেনা লোক থাকে না। তাহলে নিশ্চিত জানতে পারতাম সেখানেও নিয়মিত ঝড়বৃষ্টিবজ্রাঘাত চলছে। খালি দিল্লির ভাগে কাঁচকলা।




২. কী সাংঘাতিক। দলেদলে চ্যাংড়া ছেলেমেয়ে ঘাড়ে করে খাটবিছানা, চেয়ারসোফা, টুল, আরামকেদারা যা পাচ্ছে নিয়ে ছুটছে। কী না, আজ থেকে কেউ বসে থাকতে পারবে না। আরাম করে ফ্যানের তলায় গা এলিয়ে হাওয়া খেতে পারবে না, ইচ্ছে হলে একে অপরের নামে দুটো পরনিন্দাপরচর্চা করতে পারবে না, চানাচুর খেতে খেতে মাস্টারশেফ দেখতে পারবে না। সক্কলকে সর্বক্ষণ ছুটেছুটে কাজ করতে হবে। দেশ গড়তে হবে, কুঁড়েদের ধরে ধরে জেলে পুরতে হবে, কেউ ফেলে ছড়িয়ে সময় নষ্ট করছে দেখলেই তার গর্দান নিতে হবে।

এ কোন বিভীষিকাময় পৃথিবী গড়তে চায় এরা?

ফ্যানের তলায় শুয়েশুয়ে বিজ্ঞাপনটা দেখতে দেখতে আমার কতগুলো প্রশ্ন মাথায় এল। প্রথমত, করার মতো এত কাজ আছে নাকি পৃথিবীতে? দ্বিতীয়ত, যদি থেকেও থাকে তার জন্য এতগুলো দিব্যি ভালো কন্ডিশনে থাকা আসবাবপত্র পুড়িয়ে ঝামা করার তো দরকার নেই। চরম অবিবেচক না হলে এই গ্লোবাল ওয়ার্মিং-এর বাজারে এতগুলো টক্সিক ধোঁয়া কেউ সাধ করে আকাশেবাতাসে ছাড়ে?

আমি অবশ্য ঘাবড়াচ্ছি না। যতক্ষণ না আমার পিঠের তলা থেকে কেউ খাটবিছানা টেনে না সরাচ্ছে, ততক্ষণ না। আর সেটা হওয়ার সম্ভাবনা শূন্যের থেকেও যে কম সেটা সবাই জানে। যে প্রতিভাবান অ্যাডগুরুর মাথা থেকেই এ আইডিয়া বেরোক না কেন, আমি নিশ্চিত, এ আইডিয়াকে বাস্তবে রূপান্তরিত করার মতো বেশি লোক তিনি তাঁর দলে পাবেন না। ভগবানের মাথায় বুদ্ধি আছে, তিনি পৃথিবীর নিরানব্বই শতাংশ লোকের মগজে প্রতিভা কম, কমনসেন্স বেশি দিয়ে পাঠিয়েছেন। না হলে আর দেখতে হচ্ছিল না।

27 comments:

  1. দুঃখ কোরোনিকো, দুঃখ কোরোনি। তুমি তো তাও দিল্লী। আমি থাকি এমন জায়গায় যার নাম নদীর ধার (রিভারসাইড) হলেও বৃষ্টি পড়ে বছরে সাকুল্যে ১০ ইঞ্চি, তাও আবার এই গরমের সময়ে না, শীতকালে অদরকারের সময়। তুমি চাইলে আমার সাথে চ্যাট্‌ করতে পারো :p। বিজ্ঞাপনের দঢক্কানিনাদে সুধু একটা কথাই মাথায় এলো - খাজনার থেকে বাজনা বেশী। আর রায়বাঘিনী বলতে কি ননদিনী? তা এই উপাধিপ্রাপ্তিতে তিনি রেগেমেগে খোঁটা দেবেন না তো?

    ReplyDelete
    Replies
    1. আবির, যাক কেউ আমার ব্যথা বুঝেছে। বাজনা বেশি বলে বেশি? এত কাজ থাকে তো কেউ চেয়ার টেবিল পুড়িয়ে সময় নষ্ট করে? আর আমার ননদিনী রায়বাঘিনী শুধু নামে, আসলে মাটির মানুষ। কাজেই খোঁটা দেওয়ার চান্সই নেই।

      Delete
  2. mon kharap koro na. Hyderabad-eo bristir dekha nei... jodio shunchhi Tripuray naki nityodin jhomjhomiye bristi porchhe. Maar patthano chhobigulo dekhe dekhe amio jolchhi ar luchir mato fulchhi :-/

    Amader bristibhagyo ta akkebare niret shukno!

    ReplyDelete
    Replies
    1. তাই তো দেখছি মনস্বিতা। ভগবান আমাদের মা'দের ভালোবাসেন আমাদের বাসেন না।

      Delete
  3. achha chair sofa tool na niye haate ekta kore jharu niley tow hoto...antato desher raasta porishkar korte parto...bhenge chure ki hobe..ja achey setake porishkar kore rakho :)

    ReplyDelete
    Replies
    1. এরা নেবে হাতে ঝাঁটা? তোমার দেখে মনে হচ্ছে শম্পা?

      Delete
  4. sudur amerika teo aaj sakal theke meghla chilo. ektu agey jhomjhom kore brishti porte laglo...besh lagchey jasraj er megh shunte!

    ReplyDelete
    Replies
    1. শেষপর্যন্ত তুমিও ব্রুটাস!

      Delete
  5. বারিষ চাই বারিষ ,রেন ম্যানকে ডাকো । বারিষওয়ালা...।

    মিঠু

    ReplyDelete
    Replies
    1. সিরিয়াসলি।

      Delete
  6. 2 nombor point ta'y hi-five! amar somosto bosa'r jayga niye nile ami mati te bosbo. :P

    Amar ei muhurte ektuo brishti chai ne. Ektu roddur er dekha pele bachi. Bhogoban, ekhaner somosto brishti Delhi te pathiye dao...

    ReplyDelete
    Replies
    1. আমিও মাটি কামড়ে পড়ে থাকব টিনা।

      তুমি বেশ ভালো তো, কীরকম নিজের ভাগের বৃষ্টি আমাকে দিয়ে দিতে চাইছ। বেঁচে থাক।

      Delete
  7. hahaha....hathat dekhle oi chele guloke chor bale mane...chair-chor! satyi, or madhye theke akta aram kedara amake dileo to pare.
    arey Delhi teo habe brishti...dharo dhairjang, dharo dhairjang. :)

    ReplyDelete
    Replies
    1. আরে ধরং ধরং করে এবার প্রাণ বেরোনোং বেরোনোং হয়েছে, আর পারা যাচ্ছে না।

      ঠিক বলেছ। কীরকম চোরচোর মুখচোখ না সবার?

      Delete
  8. আমি এই বিজ্ঞাপনটার মাথামুণ্ডু বুঝতে পারলাম না।

    ReplyDelete
    Replies
    1. বোঝার যোগ্যও নয়। না বুঝেছ ভালোই হয়েছে।

      Delete
  9. hahahaha ......dillite brishti hocche na toh!!! hahahaha....aj toh abar ekhane sakal theke meghla,keral e barsha dhukeche kina,...janla die akashta dekhei bhalo lagche,bhabchi weekend e amboli ghat ghure ashi ...tui ki bolish ??:-p :-p bojhar subidher janyo akta chabi pathalam
    http://www.amazingmaharashtra.com/2012/10/amboli.html

    ReplyDelete
    Replies
    1. ওরে এক মাঘে শীত যায় না রে। বুঝবি, বুঝবি।

      Delete
  10. কাল পূণেতেও খূব বৃষ্টি হয়েছে. আকাশে এখনো কালো মেঘ. কাল অফিসফেরত দারুন ভিজেছি. :)

    ReplyDelete
    Replies
    1. আমি এবার সত্যি সত্যি রেগে যাচ্ছি কিন্তু।

      Delete
  11. "তিনি পৃথিবীর নিরানব্বই শতাংশ লোকের মগজে প্রতিভা কম, কমনসেন্স বেশি দিয়ে পাঠিয়েছেন।"--three cheers kuntaladi! tobe kauke kauke abar dutor kono tai na diye pathiyechen mone hoy :(
    dukkho koro na, tomar cheyeo dukkhi lok ache prithibi te, ei pora texas e ak fotao megh brishti kichhu nei.. ebong ei shuru holo, akhon maas 4 cholbe, jekhane sekhane jokhon tokhon, sudhu ichhe korbe ac ghore bose golper boi porte :P

    ReplyDelete
    Replies
    1. হাহাহাহা, তারা স্পেশাল ক্যাটেগরি স্বাগতা। এসি ঘরে বসে গল্পের বই পড়ার ইচ্ছেটা আমার ননস্টপ স্বাগতা। বারোমাস, তিরিশদিন, অহোরাত্র।

      Delete
  12. TOI-এর এই জ্ঞানগর্ভ অ্যাড দেখে হিন্দুর সেই অ্যাডগুলো মনে পড়ে গেল। আগেই দেখেছেন নিশ্চয়। বেশ মজাদার!

    http://www.youtube.com/watch?v=uFQhRaavZ0s
    http://www.youtube.com/watch?v=Ckzsh9SpUAQ
    http://www.youtube.com/watch?v=9RPcI3q3lkg

    ReplyDelete
    Replies
    1. হাহা, অনেকদিন পর দেখলাম। থ্যাংক ইউ পিয়াস।

      Delete
  13. Kolkatateo bristi nei, :-(, akash die kalo kolo sundor bachha meghera bhengchi kete chole jachhe, shunchhi tara uttorbonger dike jachhe.

    Sottii eto bhnagabhangir dike loker mon keno? Ami obosso ektu beshi rakomer olos.... tobu kaj dekhate bhnege chure phelte raji noi

    ReplyDelete
    Replies
    1. Ager post ta korei khabore porlam delhi te aj naki bristi hoechhe, khub hingsha holo.

      Delete
    2. ইয়েস ইচ্ছাডানা, কাল বৃষ্টি হয়েছে এখানে। তবে আজ আবার যে কে সেই। কিন্তু কাল খুব ভালো লাগছিল।

      ভাঙাভাঙির ব্যাপারটা ঠিক বলেছেন। কী হিংস্র হয়ে পড়ছি না আমরা সবাই?

      Delete

 
Creative Commons License
This work is licensed under a Creative Commons Attribution-NonCommercial-NoDerivs 3.0 Unported License.